ডিকলোনাইজেশন

অষ্টাদশ শতকে দ্বিতীয় ভাগ থেকে ইংল্যান্ড, ফ্রান্স, পর্তুগাল, হল্যান্ড, স্পেন প্রভৃতি ইউরোপীয় শক্তি এশিয়া ও আফ্রিকার বিভিন্ন দেশে ঔপনিবেশিক সাম্রাজ্য বিস্তার করতে থাকে| 

কালক্রমে তাদের শাসন ও শোষণের ব্যতিব্যস্ত/জর্জরিত হয়ে এসব দেশে জাতীয়তাবাদের উন্মেষ হয়| জনসাধারণ ঔপনিবেশিক শাসনের বন্ধন থেকে মুক্তির জন্য উদ্বেল হয়ে উঠে|

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পরবর্তীকালে এই আন্দোলন আরো তীব্র হয় এবং যুগের বৈশিষ্ট্যই হলো এইসব ঔপনিবেশিক সমাজের বিলোপ সাধন(ডিকলোনাইজেশন বা decolonization)|


ডিকলোনাইজেশন
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে

ডিকলোনাইজেশন
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে

ডিকলোনাইজেশন
দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে


দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে ইংল্যান্ড, ফ্রান্স ও অন্যান্য সাম্রাজ্যবাদী শক্তিগুলিকে অর্থনৈতিক দিক থেকে পঙ্গু করে দিয়েছিল| উপনিবেশ ধরে রাখার ক্ষমতা আর তাদের ছিল না| কিছু কিছু উপনিবেশ যুদ্ধের সময়ই হাতছাড়া হয়ে গিয়েছিল| বাকিরা মুক্তির অপেক্ষায় ছিল|

এইসব উপনিবেশ ইংরেজি জানা মধ্যবিত্ত শ্রেণী, জাতীয়তাবাদ এবং স্বাধীনতা স্পৃহার ধারক হয়ে উঠেছিল| এশিয়ার তুলনায় আফ্রিকার জাতীয় আন্দোলন ছিল মন্থর, কিন্তু পরিবর্তনের ঢেউ আফ্রিকাতেও লেগেছিল|

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে জাপানের ভূমিকা প্রশংসনীয় না থাকলেও তার পরাক্রম পরাধীন জাতিগুলির মনে স্বাধীনতার স্পৃহা জাগিয়ে তুলেছিল| অন্যদিকে প্রত্যক্ষ ঔপনিবেশিকতার দিন শেষ- এই সত্যটি ব্রিটেনের যত তাড়াতাড়ি মেনে নিতে পেরেছিল, ফ্রান্স তা পারেনি|

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে ফ্রান্স শোচনীয়ভাবে পিছিয়ে পড়েছিল, সেই লজ্জা ঢাকতে চেয়েছিলো উপনিবেশিক সাম্রাজ্য অটুট রেখে, কিন্তু শেষ পর্যন্ত তা হয়নি| তাই দেখা যায়, 1950 এর দশকে যখন ঠান্ডা লড়াই জমে উঠেছিল, তখন পরাধীন দেশগুলোতে সাম্রাজ্যবাদ বিরোধী মুক্তি আন্দোলন তথা নতুন নতুন জাতিরাষ্ট্র গঠনের পথ উন্মুক্ত হয়েছিল|



তথ্যসূত্র

  1. Pavneet Singh, "International Relations ".
  2. Dietmar Rothermund, "Memories of Post-Imperial Nations".

সম্পর্কিত বিষয়

  1. দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পরবর্তী সময় উপনিবেশবাদের পতন তথা এর গুরুত্ব (আরো পড়ুন)
  2. দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পরবর্তী সময়ে জার্মানির বিভাজন তথা বিশ্ব রাজনীতিতে তার প্রভাব  (আরো পড়ুন)
  3. ইতালিতে ফ্যাসিবাদের উত্থানের কারণ  (আরো পড়ুন)
সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ| আশাকরি আমাদের এই পোস্টটি আপনার ভালো লাগলো| আপনার যদি এই পোস্টটি সম্বন্ধে কোন প্রশ্ন থাকে, তাহলে নিচে কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে জানাতে পারেন এবং অবশ্যই পোস্টটি শেয়ার করে অপরকে জানতে সাহায্য করুন|
                     .......................................

    নবীনতর পূর্বতন
    👉 Join Our Whatsapp Group- Click here 🙋‍♂️
    
        
      
      
        👉 Join our Facebook Group- Click here 🙋‍♂️
      
    
    
      
    
       
      
      
        👉 Like our Facebook Page- Click here 🙋‍♂️
    
    
        👉 Online Moke Test- Click here 📝📖 
    
    
        
      
               
    
     Join Telegram... Family Members
      
         
                    
                    
    
    
    
    
    
    
    

    টেলিগ্রামে যোগ দিন ... পরিবারের সদস্য

    
    
    
    
    
    
    
    
    
    

    নীচের ভিডিওটি ক্লিক করে জেনে নিন আমাদের ওয়েবসাইটটির ইতিহাস সম্পর্কিত পরিসেবাগুলি

    
    

    পরিক্ষা দেন

    ভিজিট করুন আমাদের মক টেস্ট গুলিতে এবং নিজেকে সরকারি চাকরির জন্য প্রস্তুত করুন- Click Here

    আমাদের প্রয়োজনীয় পরিসেবা ?

    Click Here

    ইমেইলের মাধ্যমে ইতিহাস সম্পর্কিত নতুন আপডেটগুলি পান(please check your Gmail box after subscribe)

    নতুন আপডেট গুলির জন্য নিজের ইমেইলের ঠিকানা লিখুন:

    Delivered by FeedBurner