মাইকেল এঞ্জেলো কে ছিলেন

রেনেসাঁসের যুগের অন্যতম প্রধান শিল্পী ছিলেন মাইকেল এঞ্জেলো বা মাইকেলেঞ্জেলো বা মিকেলেঞ্জেলো (1475-1564)| তিনি ছিলেন একাধারে চিত্রকর, ভাস্কর স্থাপত্য এবং কবি| তিনি পোপ ও মেদিচি পরিবারের পৃষ্ঠপোষকতা লাভ করেছিলেন|

মাইকেল-এঞ্জেলো
ডেভিডের মূর্তি

মাইকেল-এঞ্জেলো
সিসটাইন চ্যাপেলের দেওয়াল চিত্র

মাইকেল-এঞ্জেলো
পিয়েতা


তিনি প্রথম জীবনের তৈরি করেছিলেন জগৎ বিখ্যাত ডেভিডের মূর্তি| 30 ফুট উঁচু এই মূর্তিটি ফ্লোরেন্স শহরে অবস্থিত| এঞ্জেলোর ডেভিড ছিল যুবক, আর তেজোদ্দীপ্ত ভঙ্গি সহজেই দর্শকদের মুগ্ধ করতে সক্ষম|

1505 সালে পোপ দ্বিতীয় জুলিয়াস শিল্পীকে রোমে গিয়ে তার সমাধি নির্মাণের দায়িত্ব দেন| এখানে তিনি মোজসের মূর্তিটি তৈরি করেন| মেদিচি পরিবারের জন্য তিনি কিছু স্থাপত্যের কাজ করেন| ফ্লোরেন্সের লরেন সিয়ান পাঠাগারের সিড়িঁটি তিনি নির্মাণ করেন| 

এমনকি নতুন সেন্ট পিটার গির্জার পরিকল্পনা তারই সৃষ্টি| তবে তাঁর জীবনের সেরা সৃষ্টি হলো রোমের সিসটাইন চ্যাপেলের দেওয়াল চিত্র বা ফ্রেস্কো| এই দেওয়াল চিত্র রয়েছে সৃষ্টি তত্ত্বের ব্যাখ্যা, সন্ত ও সন্ন্যাসীরা এবং ঈশ্বর ও আদম| এখানে ওল্ড টেস্টামেন্টের কাহিনী, সন্তদের বাণী, সন্ন্যাসীদের কথা ঐতিহ্য অনুযায়ী মেলানো হয়েছে| প্রায় সাড়ে চার বছর অক্লান্ত পরিশ্রমে তিনি এই বিশাল শিল্পকর্ম শেষ করেন| বহু পন্ডিত ও শিল্পের সমার্থক এই শিল্পকর্ম দেখে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন|

শিল্পীর আরও দুটি মহান শিল্পী সৃষ্টি হল "শেষ বিচার" এবং "পিয়েতা"| শেষ বিচারে তিনি দেখিয়েছেন, "মানুষের আত্মিক দ্বন্দ্ব, মুক্তির জন্য ব্যাকুলতা এবং সীমাবদ্ধতার যন্ত্রণা"| 

অন্যদিকে পিয়েতা হল মাতা মেরির বিষন্নতার মুহ্যমান একটি দৃশ্য| মাতা মেরির কোলে শায়িত মৃত পুত্র| মায়ের এই বিষন্নতা ভাষায় প্রকাশ করা যায় না, হৃদয় দিয়ে অনুভব করতে হয়| বিশ্বের সব দুঃখ ও বেদনা এর মধ্যে ধরা পড়েছে, এজন্য এর নাম পিয়েতা বা করুনা|


তথ্যসূত্র

  1. অধ্যাপক গোপালকৃষ্ণ পাহাড়ি, "ইউরোপের ইতিবৃত্ত"
  2. Jacob Burckhardt, "The Civilization of the Renaissance in Italy".
  3. Roberta J. M., "The Biography of the Object in Late Medieval and Renaissance Italy".

সম্পর্কিত বিষয়

সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ| আশাকরি আমাদের এই পোস্টটি আপনার ভালো লাগলো| আপনার যদি এই পোস্টটি সম্বন্ধে কোন প্রশ্ন থাকে, তাহলে নিচে কমেন্টের মাধ্যমে আমাদেরকে জানাতে পারেন এবং অবশ্যই পোস্টটি শেয়ার করে অপরকে জানতে সাহায্য করুন|
               ........................................... 
নবীনতর পূর্বতন
👉 Join Our Whatsapp Group- Click here 🙋‍♂️

    
  
  
    👉 Join our Facebook Group- Click here 🙋‍♂️
  


  

   
  
  
    👉 Like our Facebook Page- Click here 🙋‍♂️

    👉 Online Moke Test- Click here 📝📖 

    
  
           

 Join Telegram... Family Members
  
     
                
                






টেলিগ্রামে যোগ দিন ... পরিবারের সদস্য









নীচের ভিডিওটি ক্লিক করে জেনে নিন আমাদের ওয়েবসাইটটির ইতিহাস সম্পর্কিত পরিসেবাগুলি


পরিক্ষা দেন

ভিজিট করুন আমাদের মক টেস্ট গুলিতে এবং নিজেকে সরকারি চাকরির জন্য প্রস্তুত করুন- Click Here

আমাদের প্রয়োজনীয় পরিসেবা ?

Click Here

ইমেইলের মাধ্যমে ইতিহাস সম্পর্কিত নতুন আপডেটগুলি পান(please check your Gmail box after subscribe)

নতুন আপডেট গুলির জন্য নিজের ইমেইলের ঠিকানা লিখুন:

Delivered by FeedBurner